অ্যালকোহল পান করলে করোনা থেকে মুক্তি! ভ্রান্ত ধারণায় বিশ্বাস করে মৃত ৭০০

অ্যালকোহল পান করলে করোনাভাইরাসের হাত থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। কে যে এমন ব্রান্ত ধারমা ছড়িয়েছিল! সেই ভ্রান্ত ধারণায় বিশ্বাস রেখে প্রাণ হারালেন ৭০০ মানুষ। ইরানের সরকার জানিয়েছে, তাদের দেশে ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে ৭ এপ্রিলের মধ্যে ৭০০ মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন এই ভ্রান্ত ধারণায় বিশ্বাসের জন্য। ২০০ জন প্রাণ হারিয়েছেন বিভিন্ন হাসপাতালের বাইরে।

সরকারের তরফে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, মিথানল অ্যালকোহল পান করে বহু মানুষ মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েছেন। সরকার হাজার চেষ্টা করেও জনগণকে বোঝাতে পারেনি, অ্যালকোহল পান করলে করোনার হাত থেকে মুক্তি পাওয়ার খবর সম্পূর্ণ ভুয়া। 

বিশ্বজুড়ে লকডাউন। নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র পেতে হিমশিম খেতে হচ্ছে সাধারণ মানুষকে। এর মধ্যে মদের দোকান বন্ধ। ফলে অনেকের অসুবিধা বেড়েছে। নিয়মিত পান করার অভ্যেস রয়েছে যাঁদের তাঁদের এখন ঘোর বিপদ। অ্যালকোহলের জোগান নেই। ইরানেও একই অবস্থা। তবে অনেকেই মনে করছেন, মদ্যপান করলে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যাবে। এমন ধারণার কোনও বৈজ্ঞানিক ভিত্তি নেই।

ইরান স্বাস্ত্য দফতরের মুখপাত্র কিয়ানুশ জাহাপর বলেছেন, ৫০১১ জন এখনও পর্যন্ত মিথানল অ্যালকোহল পান করে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। তাদের মধ্যে ৯০ জন দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছেন। অনেকেই দৃষ্টিশক্তি হারানোর মুকে দাঁড়িয়ে। প্রসঙ্গত, ইরানে এখনও পর্যন্ত ৯১ হাজার মানুষের শরীরে করোনার জীবাণু পাওয়া গিয়েছে। মারা গিয়েছেন ৫৮০৬ জন।

মিথানল অ্যালকোহল পান করলে শরীরের অঙ্গপ্রত্যঙ্গ ও মস্তিষ্ক বিকল হতে পারে। বুকে ব্যথা, দৃষ্টিশক্তি লোপ পেতে পারে। ইরানের সরকার এই নিয়ে জনগণের মধ্যে সচেতনতা প্রচারের চেষ্টা করেছে।

কিন্তু লাভ হচ্ছে না। ইরানের স্বাস্থ্য দফতর জানিয়েছে, গত বছর মিথানল পান করে সেখানে ৬৬ জন মারা গিয়েছিল। কিন্তু এবার করোনার জন্য অন্যরকম চিত্র। লোকজনের মধ্যে ভ্রান্ত ধারণা তৈরি হয়েছে, অ্যালকোহল পান করলে করোনা আর ছুঁতে পারবে না। 

আরও পড়ুন:

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪২৫, আক্রান্ত ২০ হাজার

করোনা কে ‘রাজ্যের বিপর্যয়’ বলে ঘোষণা কেরলের, মোকাবিলায় ৪০ হাজার সরকারি কর্মী

করোনাভাইরাস: আমাদের স্বাস্থ্যঝুঁকি ও প্রয়োজনীয় কিছু উদ্যোগ

Facebook Comments