জগদীপ

সংঘাত আরও বাড়ালেন রাজ্যপাল। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারকে বিঁধে ফের টুইট জগদীপ ধনখড়ের। কেন্দ্রের দেওয়া রেশন বাংলায় সুষ্ঠুভাবে বণ্টনে রাজ্য যথোপযুক্ত পদক্ষেপ করবে বলে আশাবাদী রাজ্যপাল।

‘প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ অন্ন যোজনা প্রকল্পে এরাজ্যেও সবাই নিখরচায় রেশন পাবেন, আমি নিশ্চিত পশ্চিমবঙ্গ সরকার এব্যাপারে যথোপযুক্ত পদক্ষেপ করবে।’ রাজ্য সরকারকে বিঁধে রবিবার ফের টুইট করেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়।

শনিবারের পর রবিবারও পশ্চিমবঙ্গ সরকারের উদ্দেশ্যে টুইট করলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। এদিন সমালোচনার পথে না গিয়ে বরং একাধিক পরামর্শ দিয়েছেন ধনখড়। রেশনে যাতে সুষ্ঠু ও স্বচ্ছভাবে খাদ্যসামগ্রী বণ্টন হয় সেব্যাপারে প্রয়োজনীয় ভূমিকা রাজ্যেরই নেওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেছেন জগদীপ ধনখড়।

শনিবারের পর রবিবার ফের টুইট রাজ্যপালের। এদিন রেশনে খাদ্যসামগ্রী বণ্টন প্রসঙ্গে টুইট করেন রাজ্যপাল। তিনি লেখেন, ‘প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ অন্ন যোজনা প্রকল্পে এরাজ্যেও সবাই নিখরচায় রেশন পাবেন, আমি নিশ্চিত পশ্চিমবঙ্গ সরকার এব্যাপারে যথোপযুক্ত পদক্ষেপ করবে।’

সম্প্রতি লকডাউন চলাকালীন রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে রেশনে খাদ্য-সামগ্রী বণ্টনে দুর্নীতির অভিযোগ ওঠে। একাধিক এলাকায় রেশন দুর্নীতিতে অভিযোগ ওঠে স্থানীয় তৃণমূল নেতাদের বিরুদ্ধে।

এরই পাশাপাশি গত কয়েকদিনেও একাধিক জেলায় রেশনে দুর্নীতির অভিযোগ তুলে কোথাও ডিলারের বাড়ি ভাঙচুর, কোথাও দোকা-গাড়িতে আগুন লাগানোরও অভিযোগও ওঠে। বাংলায় রেশন বণ্টনে দুর্নীতি হচ্ছে বলে অভিযোগ তুলেছে বিরোধীরাও।

তৃণমূল নেতৃত্বকে কাঠগড়ায় তুলে রেশন দুর্নীতি নিয়ে প্রতিবাদ জানিয়েছে বিজেপি। একইসঙ্গে বামেরাও রেশন দুর্নীতি নিয়ে সরাসরি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা করে নালিশ জানিয়েছেন।

রবিবার রাজ্যপালও ফের রেশন নিয়ে মুখ খুলেছেন। তিনি লিখেছেন, ‘রেশন বণ্টনে দুর্নীতি, রাজনৈতিক হস্তক্ষেপ নিয়ন্ত্রণ করা উচিত। রেশনের সুবিধা যাতে গরিব মানুষ পান সেটা দেখতে হবে। রেশনের পণ্য নিয়ে কালোবাজারি রুখতে হবে।’

আরও পড়ুন:

আ.লীগ নেতারা কাঁচা ধান কেটে জাতির কাছে তামাশার পাত্র হয়েছে: রিজভী

মাস্কবিহীন? ত্রান নিতে এলেও উচিৎ ‘শিক্ষা’ দিচ্ছে আঞ্চলিক তৃণমূল কংগ্রেসের সদস্যরা

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস ডিজিজ কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা ৩৪ লাখ ছাড়াল

গেঞ্জির কাপড়ের মাস্ক অনেক বেশি কার্যকর “যুক্তরাষ্ট্রের ইলিনয় ইউনিভার্সিটি”

Facebook Comments